প্রায় যুক্তরাষ্ট্রের সমপরিমাণ ৩১ কোটি নাগরিককে একযোগে ভ্যাকসিন দেবে ভারত

image_pdfimage_print

দক্ষিণ এশিয়ার দেশটিতে ১ কোটির বেশি মানুষের কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। দেশটি এই পরিস্থিতি উত্তরণে হাতে নিয়েছে এক মহাপরিকল্পনা। প্রথম দফাতেই তারা ৩১ কোটি মানুষকে টিকা দেবে। যা এ যাবৎকালের বৃহত্তম টিকা কর্মসূচী।
প্রথম দফায় ভ্যাকসিন পাবেন ৩ কোটি স্বাস্থ্যকর্মী, পুলিশ, সৈনিক ও সেচ্ছাসেবক। ২৭ কোটি মানুষ যাদের য়স ৫০ এর উপর এবং ১ কোটি মানুষ যাদের বড় ধরণের স্বাস্থ্য সমস্যা রয়েছে। দেশটিতে ৩টি ভ্যাকসিন উৎপাদক জরুরি অনুমোদনের আবেদন করেছে। সবগুলোরই ২টি করে ডোজ দরকার হবে। সব মিলিয়ে দেশটিতে লাগবে ৬০ কোটি শট। পুরো প্রক্রিয়াটি আগস্টের মধ্যে শেষ করতে চান দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।
বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অধিকাংশ মানুষ দরিদ্র এবং স্বাস্থ্য ব্যবস্থা ইতোমধ্যেই ভেঙে পড়েছে এমন একটি দেশের জন্য এটি হতে যাচ্ছে বিশাল এক চ্যালেঞ্জ। তবে ভারতের নিজস্ব কিছু সুবিধা ররয়েছে। তাদের বিশাল ভ্যাকসিন প্রোডাকশন লাইন আছে। বিশ্বের বৃহত্তম বেশ কিছু টিকা কারখানা দেশটিতে অবস্থিত। ফলে দ্রুত এবং কমদামেই তারা ভ্যাকসিন পাবে।
এর বাইরেও ভারতের নিজস্ব টিকাদানকারী স্বেচ্ছাসেবক বাহিনী আছে। যারা সারা বছর সাড়ে ৫ কোটি মানুষকে বিভিন্ন ধরণের টিকা দেয়। তাদেরও কাজে লাগাতে পারবে দিল্লি। এবং দেশটিতে টিকা বিরোধী প্রায় নেই বললেই চলে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *