ছেলের জন্য ক্ষমা চাইলেন কুমার শানু

image_pdfimage_print

কিংবদন্তি সংগীত শিল্পী কুমার শানু করোনা আক্রান্ত সুস্থ্য হলেও এখন ভুগছেন নিউমোনিয়ায়। বর্তমানে তিনি আমেরিকায় অবস্থান করছেন। সেখানে তার পাশে থেকে গায়ক শান সহযোগীতা করছেন।
কুমার শানু বলেন, ‘করোনা সেরে গেলেও নিউমোনিয়ায় ভুগছিলাম। আমার অসুখের সময়ে শান যেভাবে সাহায্য করেছে, জীবনে ভুলব না। চিকিৎসকদের পরামর্শ তো আমি নিচ্ছিলামই। কিন্তু শান তার পরিচিত চিকিৎসকদের সঙ্গে কথা বলে আমার পাশে থেকেছে। দিনকয়েক আগেই আমেরিকায় এসেছি। আগের চেয়ে অনেকটাই ভালো আছি।
তবে করোনা কাটিয়ে উঠতে না উঠতেই পুত্র জানকে নিয়ে বিতর্কে জড়িয়ে পড়েন গায়ক কুমার শানু। সম্প্রতি জান রিয়্যালিটি শো ‘বিগ বস’-এ অংশগ্রহণ করছেন। সেখানেই ‘স্বজনপোষণ’ বিতর্কে জড়িয়ে পড়লে জান পরিষ্কার জানান, তিনি তারকাপুত্র হিসেবে কোনও সুবিধে পাননি। তাঁর মা-ই তাঁকে মানুষ করেছেন। গত ২৭ বছর পিতা-পুত্রের মধ্যে বিশেষ যোগাযোগ ছিলো না।
কুমার শানু তার ছেলের কথা মেনে নিয়ে বললেন, ওর মা-ই ওকে মানুষ করেছে। আমার তাতে কোনো ভূমিকা ছিনো না। কিন্তু ছেলেকে নাকি এই রিয়্যালিটি শোয়ে অংশগ্রহণ করতে বারণ করেছিলেন তিনি। জানের কাছে এই শোয়ের অফার এলে ও আমার মত জানতে চায়। আমি তখনই ওকে বারণ করেছিলাম। পরের সিদ্ধান্ত ওর নিজের। তবে এখন ও ভালোই খেলছে।
শোয়ে মরাঠি ভাষা প্রসঙ্গে জানের নেতিবাচক মন্তব্য নিয়ে তৈরি হয় বিতর্ক। জান মরাঠিদের ভাবাবেগে আঘাত করার জন্য, কুমার শানু সকলের কাছে ক্ষমা চেয়ে নেন। সে প্রসঙ্গে আক্ষেপও কলে বলেন, গত ৪০ বছরে কখনও মাথা নোয়াতে হয়নি আমাকে। কিন্তু জানের জন্য ক্ষমা চাইতে হয়েছে সকলের কাছে। এ সব প্রশ্ন আসতই না, যদি ও সেখানে না যেত। জানের বয়স কম। ওর পক্ষে এ সব সামলে চলা কঠিন। সে জন্যই আমি বারণ করেছিলাম।
তবে শানুর মেয়ে শ্যানন অনলাইনে জানের এপিসোড ফলো করেন। শানু বললেন, ‘‘এ বিষয়ে ওর মায়েরও আপত্তি নেই। ভাই-বোন নিজেদের মধ্যে কথা বলে নেবে। ভালোই হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *