করোনায় স্বাস্থ্য খাতে কিছু দুর্নীতি হয়েছিল কিন্তু আমরা ছাড় দেই নি: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

image_pdfimage_print

সোমবার (১৮ জানুয়ারি) বেলা ১২টার দিকে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি (ডিআরইউ)তে মিট দ্যা প্রেসে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক একথা বলেন।
তিনি বলেন, সফলভাবে করোনাপরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করায় বাংলাদেশ সরকারের প্রশংসা করে প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি দিয়েছে বিশ্ব স্থাস্থ্য সংস্থা ।
তিনি বলেন, ২৫ অথবা ২৬ জানুয়ারির মধ্যে সেরামের করোনা টিকা আসবে। করোনার পর আমরা তাড়াতাড়ি ট্রিটমেন্ট শুরু করেছি, যা অন্যরা করতে পারেনি। আমাদের বিশ হাজার বেড তৈরি করতে হয়েছে, আইসোলেশন বেড তৈরি করতে হয়েছে, ডাক্তারদের ট্রেনিং দিতে হয়েছে, ১৫ দিনে ২০ হাজার ডাক্তার, ১৫ হাজার নার্স নিয়োগ দেয়া হয়েছে।
মন্ত্রী বলেন, করোনার প্রকোপ শুরু হওয়ার পর আমরা মিডিয়া ক্যাম্পেইন করেছি, সেটাতে সফলও হয়েছি। একটা সেন্ট্রাল মিডিয়া সেল করা হয়েছিল। তারপরও বলা হয়েছে আমাদের অব্যবস্থনার কথা।
তিনি বলেন, করোনার পর থেকে হাসপাতালগুলোতে নানারকম ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। যে ব্যবস্থা আমেরিকা, ইউরোপ নিতে পারেনি। তারা ট্যাকেল করতে পারছে না, সেখানে আমরা খুব ভালোভাবে ব্যবস্থা নিয়েছি। এমনকি মাস্ক যে কার্যকরী ব্যবস্থা সে বিষয়টি তুলে ধরেছি। নো মাস্ক নো সার্ভিস ব্যবস্থা চালু করার পর মাস্ক ব্যবহার বেড়েছে।
জাহিদ মালেক বলেন, করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আমরা বুঝতেই পারিনি। কিন্তু আমেরিকা, ইতালি, যুক্তরাজ্য হিমশিম খাচ্ছে। এসবই আমাদের সুষ্ঠ ব্যবস্থাপনার কারণে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *