এখনও শেষ হয়নি বুবলীকে নিয়ে জল্পনা-কল্পনা

image_pdfimage_print

বুবলী আড়াল থেকে বেরিয়ে এসেছেন বলা হলেও আসলে তিনি একেবারেই সীমিত সংখ্যক লোকের সঙ্গে যোগাযোগ করছেন। বর্তমান তারকা সংকটে নানাভাবে তার নাম আলোচনায় এলেও বাস্তবতা ভিন্ন। তাকে কেউ যোগাযোগ করতে পারছেন না। সামনে মুক্তি পাবে তার অভিনীত সৈকত নাসিরের ক্যাসিনো ছবিটি। এটির প্রচারে তার উপস্থিত থাকার কথা আছে। তবে সৈকত নাসির তাকে নতুন একটি ছবির অফার দিয়েছিলেন। কিন্তু বুবলী দশ লাখ টাকা পারিশ্রমিক দাবি করে পরোক্ষভাবে ছবিটি ফিরিয়ে দিয়েছেন।
সেখানে এখন কাজ করছেন পূজা চেরি। এর মানে বুবলী এবং পূজা চেরির মধ্যে তারকা হিসেবে মূল্যগত কোনো তফাত নেই বা কেউ পার্থক্য করছেন না। কারো ছবিই যেখানে বাণিজ্য সফল হচ্ছে না, সেখানে তারকা মূল্য নির্ধারণও সম্ভব হচ্ছে না। এছাড়া বুবলীকে নিয়ে যারা আগে ছবি নির্মাণ করেছেন তাদেরও কেউ তার সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারছেন না। তাহলে যেখানে তার পেশার লোকজনই তার সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারছেন না, তাহলে তিনি আড়াল ভাঙলেন কি করে? মাঝে তিনি শাকিব ঘরানার কিছু লোকের সঙ্গে যোগাযোগ করে তার ঢাকা অবস্থান জানান দিয়ে আবার তিনি নিজেকে গুটিয়ে নিয়েছেন।
বুবলীর দেওয়া এটাও একটা বিনোদন। বুবলী অভিনীত এ পর্যন্ত নয়টি ছবি মুক্তি পেয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে বসগিরি, শ্যুটার, রংবাজ, অহংকার, চিটাগাইঙ্গা মাইয়া নোয়াখাইল্যা পোলা, সুপার হিরো, ক্যাপ্টেন খান, পাসওয়ার্ড, মনের মতো মানুষ পাইলাম না ও বীর। এসব ছবিগুলো কোনটা কেমন ব্যবসা করেছে, তা প্রকাশ্য। তবে পাসওয়ার্ড ছবিটি ব্যাপক ব্যবসা করেছে। এ ছবিটিতে বুবলীর বিপরীতে নায়ক ছিলেন শাকিব খান। সম্প্রতি শাকিব খান অভিনীত নবাব এলএলবি ওটিটি প্ল্যাটফর্ম আইথিয়েটারে মুক্তি পেয়েছে। তাও দুই পর্বে। তাই চলচ্চিত্র শিল্পীদের নিয়ে নির্মিত হলেও এটিকে কেউ চলচ্চিত্র বলতে নারাজ। অনেকেই এটিকে বলতে শুরু করেছেন ওয়েব সিরিজ। চলচ্চিত্র না বলার আরেকটি কারণ হলো ছবিটি সেন্সর করানো হয়নি। নবাব এলএলবির কারণে পরিচালক অনন্য মামুনকে কারাগারেও যেতে হয়েছে। এখন দীর্ঘ বিরতির পর শাকিব-বুবলী যদি আবারও জুটি হয়ে আসেন তাহলে চলচ্চিত্র ব্যবসায়ের কোনো উপকার হবে কি?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *